রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান না হওয়া পর্যন্ত ভারতের সঙ্গে সিরিজ খেলবে না পাকিস্তান

এশিয়ানবার্তা ডেস্কঃ রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান না হওয়া পর্যন্ত ভারতের সঙ্গে সিরিজ খেলবে না পাকিস্তান।

সন্ত্রাসবাদীদের মদত জোগানো থেকে শুরু করে সীমান্তসহ একাধিক ইস্যুতে এখনও তলানিতে ভারত- পাকিস্তান সম্পর্ক। এই পরিস্থিতিতে দীর্ঘদিন দু’দেশের মধ্যে ক্রিকেট সিরিজও বন্ধ। তবে দুই দেশের রাজনৈতিক টানাপোড়েনের মধ্যেও টিম ইন্ডিয়ার সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ খেলতে চেয়েছিল পাকিস্তান বোর্ড। কিন্তু ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই সেই প্রস্তাব সাফ খারিজ করে দেয়। জানিয়ে দেয়, সন্ত্রাস ও খেলা একসঙ্গে সম্ভব নয়। তাই এবার পিসিবির কাছে ভারত-পাক সিরিজ আঙুর ফল টকের মতো হয়ে দাঁড়িয়েছে।

বারবার প্রত্যাখ্যাত হতে হতে এ বিষয়ে কার্যত কোণঠাসাই পাক বোর্ড। আর তাই এখন উলটো সুর তাদের গলায়। আগামীদিনেও দুদেশের মধ্যে সিরিজ হওয়ার সম্ভাবনা কম। এমনটাই এবার জানিয়ে দিলেন পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের চেয়ারম্যান এহসান মানি। যতক্ষণ না দু’দেশের রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান হচ্ছে, ততক্ষণ দু’দেশের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ হওয়া সম্ভব নয়।

এহসান মানি বলেন, ‘বছরের পর বছর ধরে বিসিসিআইর সঙ্গে কথা বলেছে পিসিবি। টি-২০ হোক কিংবা দ্বিপাক্ষিক সিরিজ, সবকিছুর প্রস্তাবই দেওয়া হয়েছে। তবে এখন আর আমাদের ভারতে খেলার ইচ্ছে নেই। প্রথমে তাদের সঙ্গে রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান হবে, তারপর আমরা দ্বিপাক্ষিক সিরিজের বিষয়ে কথা বলবো। তবে তার আগে কোনও কথা নয়। এবার ওদেরই কথা বলতে হবে। আইসিসির স্পষ্ট নিয়ম, কোনও দেশের সরকার ক্রিকেট বোর্ডের কাজে হস্তক্ষেপ করতে পারবে না। আশা করি, এবারে আইসিসি ভারতের সঙ্গে কথা বলবে। এর পাশাপাশি তিনি জানান প্রয়াত সাবেক বোর্ড সভাপতি জগমোহন ডালমিয়ার সঙ্গেও তার খুব ভাল সম্পর্ক ছিল। ডালমিয়ার প্রশংসাও শোনা যায়।

এর আগে চলতি বছরে এশিয়া কাপে অংশ নিতে পাকিস্তান যাওয়ার কথা ছিল ভারতীয় দলের। কিন্তু বছরের শুরুতেই বিসিসিআই জানিয়ে দেয়, পাকিস্তান যাবে না ভারত। এরপর টুর্নামেন্টটি স্থানান্তরিত করা হলেও করোনা সংক্রমণের কারণে তা আর আয়োজিতই করা হয়নি। গত ১৪ বছরে কোনও দ্বিপাক্ষিক টেস্ট সিরিজে অংশ নেয়নি ভারত – পাকিস্তান। দু’দেশের মধ্যে শেষ ওয়ানডে সিরিজ খেলা হয়েছিল ২০১২ – ১৩ সালে। এছাড়া পরবর্তীতে কেবল আইসিসির প্রতিযোগিতাতেই মুখোমুখি হয়েছে দুই দেশ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.