সিনেপ্রেমীদের জন্য এবারের ২২ তম কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব

08কলকাতা থেকে গৌতম মালিক: কলকাতার নেতাজী ইন্ডোর স্টেডিয়ামে প্রদীপ জ্বালিয়ে ২২ তম কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের আনুষ্ঠানিক সূচনা করেন বিগ বি তথা বলিউড অভিনেতা অমিতাভ বচ্চন। এসময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন অমিতাভের স্ত্রী অভিনেত্রী জয়া বচ্চন, অভিনেতা শাহরুখ খান, সঞ্জয় দত্ত, কাজল, পরিণীতা চোপরা, পরিচালক গৌতম ঘোষ, হরনাথ চক্রবর্তী, রঞ্জিত মল্লিক, ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত, দেব, রিমি চক্রবর্তী, কোয়েল মল্লিক, নুসরৎ জাহান, সায়ন্তনী, মমতা শঙ্কর সহ টালিগঞ্জের একঝাঁক তারকা। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় সহ মন্ত্রিসভার অন্য সদস্যরাও।

১৮ নভেম্বর পর্যন্ত বাংলাদেশ, ফ্রান্স, জার্মানি, চিন, শ্রীলঙ্কা, ব্রাজিল, গ্রীস সহ বিশ্বের ৬৫ টি দেশের মোট ১৫৬ টি ছবি দেখানো হবে এই উৎসবে। উৎসবের উদ্বোধন হয় বাংলা ছবি দিয়ে। এবারের উৎসবের ফোকাস কান্ট্রি চিন। আট দিনের এই উৎসবে চিনের মোট সাতটি ছবিকে দেখানো হবে। তবে বাংলায় বক্তব্য রেখে এদিন পশ্চিমবঙ্গের ‘ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডার’ শাহরুখ খান উপস্থিত শ্রোতাদের নজর কেড়েছেন।  মঞ্চে উঠেই শাহরুখ বলেন ‘মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী শ্রীমতি মমতা ব্যানার্জি।

09উপস্থিত সকল সম্মানিত অতিথি এবং জুরি মেম্বার, প্রিয় বন্ধুগণ, আপনাদের সবাইকে নমস্কার। কলকাতায় আসবো আর বাংলায় বলবো না একি কখনও হয়? এখনও আমার বাংলায় অনেক ভুল আছে। সে দোষ পুরোপুরি আমার। আশা করি আপনারা আমাকে ক্ষমা করবেন। আজ কিন্তু আরেকটা ভাষার কথাও বলবো, সেটা সিনেমার ভাষা…। মাঝে কিছুটা ইংরেজিতে বলে ফের বাংলায় বক্তব্য রাখা শুরু করেন তিনি। অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি বলেন ‘আমি আগেও বলেছি কলকাতা আমার প্রাণের শহর, কলকাতা ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল আমার প্রাণের উৎসব।

আমি আশা করবো এবারের উৎসব প্রতিবারের মতো সফল হবে। আর বেশি কিছু বলবো না। আসুন একসঙ্গে কিছু চমৎকার ছবি দেখি। নমস্কার, ধন্যবাদ’। তবে বক্তব্য রাখার আগে ভুলের জন্য ক্ষমা চেয়ে নিয়ে বাদশা বলেন ‘ভুল হলে ক্ষমা করে দেবেন, আগামী বছর খুব ভাল করে বাংলায় বলবো’।
নারী পরিচালিত ছবি নিয়ে এবারও থাকছে ‘কমপিটিটিভ সেকশন’ বিভাগ। এছাড়াও থাকছে এশিয়ান সিলেক্ট, ইন্ডিয়ান সিলেক্ট, কনটেম্পোরারি ওয়ার্ল্ড সিনেমা,

10বেঙ্গলি প্যানোরামা, চিলড্রেন সেকশন।  নন্দন, শিশির মঞ্চ, রবীন্দ্রসদনরে পাশাপাশি স্টার, প্যারাডাইস, নবীনা, মিত্রা সহ কলকাতার ১৩ টি পেক্ষাগৃহে এই ছবিগুলি প্রদর্শিত হবে। কাল থেকে আগামী ৭ দিন সিনে জ¦রে আক্রান্ত হতে চলেছে তিলোত্তমার সিনেপ্রেমীরা। এবছর পরিচালক তৌকির আহমেদ পরিচালিত বাংলাদেশের ‘অজ্ঞাতনামা’ ছবিটি দেখানো হবে এই চলচ্চিত্র উৎসবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.