ঈশ্বরদী ইউনিয়নের পালিদেহায় শীতবস্ত্র বিতরণ


ঈশ্বরদী (পাবনা) সংবাদদাতা :ঈশ্বরদী ইউনিয়নের পালিদেহা গ্রামে শীতার্ত, অসহায়, দুস্থ ও হতদরিদ্র মানুষের মাঝে শীতবস্ত্র হিসেবে কম্বল ও জ্যাকেট বিতরণ করেছেন। আজ শুক্রবার দুপুরে ১০০টি কম্বল ও ২৫০টি জ্যাকেট বিতরণ করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ হিউম্যান রাইটস ফাউন্ডেশন ঈশ্বরদী শাখার সাধারন সম্পাদক সেলিম আহমেদ, ঈশ্বরদী শিল্প ও বণিক সমিতির নির্বাহী সদস্য মেহেদি হাসান লিখন, ২ নং ঈশ্বরদী ইউপি মেম্বর শহিদুল ইসলাম খান সন্টু, রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংকের (অবঃ) প্রিন্সিপাল অফিসার ইসাহাক আলী, সমাজ সেবক মোঃ শরিফুল ইসলাম সোহেল, মৌসুমী আক্তার মলি, আব্দুল মান্নান, আব্দুল খালেক, তৌফিক কামাল ও জুয়েল রানা।

বক্তারা বলেন, এই অঞ্চলের মানুষ উত্তরের হিমেল বাতাস, শৈত্যপ্রবাহ ও ঘণ কূয়াসার কারণে শীতে কাবু হয়ে পড়েছে। শীতবস্ত্রের অভাবে কষ্ট পাচ্ছে পালিদেহা গ্রামের শীতার্ত, অসহায়, দুস্থ ও হতদরিদ্র মানুষগুলো। অসহায় মানুষ গুলোকে শীতের কষ্ট থেকে একটু রেহাই দিতে শীতবস্ত্র হিসেবে কম্বল ও জ্যাকেট বিতরন করা হয়েছে। এই গুলো সরকারি কোন অনুদান নয়। এলাকার শীতার্ত মানুষের কথা চিন্তা করে ব্যক্তি উদ্যোগে শীতবস্ত্র বিতরণ করা হলো।
শীতবস্ত্র নিতে আসা রুপভান বেওয়া বলেন, শীতে রাইতের বেলা হিয়েলের (শীতের) কারণে ঘুম আসেনা। অনেক সময় ঘুম থেইকি জাইগি বসি থাকি। শীতে অনেক কষ্ট হচ্ছিলি। এবার একটা কম্বল পায়া রাইতের বেলা আরামে ঘুম আসতি পারবোনি। ছমিরন বেওয়া বলেন, সরকারের থেইকি অনেক মাইনষেক চেয়ারম্যান, মেম্বর ও এমপি সাহেব কম্বল দিছে শুনিছি। শীতে কষ্ট করার পরেও আমাক কেউ একটা কম্বল দেয়নি। আইজকি একটা কম্বল পায়া জার (শীত) থেইকি রক্ষা পাবনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.