1. aknannu1964@gmail.com : AK Nannu : AK Nannu
  2. admin@asianbarta24.com : arifulweb :
  3. angelhome191@gmail.com : Mahbubul Mannan : Mahbubul Mannan
  4. info@asianbarta24.com : Dev Team : Dev Team
বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৫:২৪ অপরাহ্ন
সর্বশেষ :

সাদুল্লাপুরে পাওনা টাকা আত্নসাতের অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন

  • আপডেট করা হয়েছে : রবিবার, ১৬ অক্টোবর, ২০২২
  • ১০ বার দেখা হয়েছে

শহিদুল ইসলাম শাহিন,সাদুল্লাপুর (গাইবান্ধা) প্রতিনিধিঃ গাইবান্ধার সাদুল্লাপুর উপজেলার নলডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নুর আলম নান্টু তার পাওনা টাকা আত্নসাতের হীনমানসে পরিকল্পিত ভাবে বাড়ি চুরির ঘটনায় সংবাদ সম্মেলন করেছেন।

রবিবার সকাল ১১ টায় উপজেলার নলডাঙ্গা ইউনিয়নের পশ্চিম খামার দশলিয়াস্থ গ্রামীন ব্যাংক সংলগ্ন নিজ বাড়িতে এ সংবাদ সম্মেলন করেন তিনি।
অনুষ্ঠিত এ সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগি নুর আলম নান্টু তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, প্রায় ৫মাস আগে আমার প্রতিবেশি সার কীটনাশক ব্যবসায়ী হরিসুদন মুখার্জী ব্যবসার আর্থিক সংকটে তার নিজের স্বাক্ষরিত তিনশত টাকার একটি স্ট্যাম্প, নলডাঙ্গা অগ্রনী ব্যাংক শাখার ২ টি চেকের পাতা, ভোটার আইডি কার্ড ও ট্রেড লাইসেন্সের ফটোকপি ভবিষ্যত ডকুমেন্ট হিসেবে আমার কাছে জমা দিয়ে দু,দফায় নগদ ও নলডাঙ্গা অগ্রণী ব্যাংক থেকে চেকের মাধ্যমে ৫০ লক্ষ টাকা ধার নেয়।

সম্পতি আমি পাওনা টাকা চাইলে হরিসুদন মুখার্জী আমার সহজ সরলতার সুযোগ নিয়ে আজকাল পরশু দিবে বলে গত দু,মাস ধরে তালবাহনা ও হয়রানী করে আসছেন। এরইমধ্যে একটি দুষ্টচক্রের কু মন্ত্রনায় হরিসুদন মুখার্জী পরিকল্পিত ভাবে আমার পাওনা টাকা আত্নসাতের লক্ষ্যে গত ১০/৯/২০২২ ইং তারিখ রাত ৯ টার সময় বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে আমার নিজ বাড়ির ঘরের তালা ভেঙ্গে ঘরের ভিতর প্রবেশ করে আলমারিতে রক্ষিত তার ধারকৃত টাকার বিপরীতে দেয়া চেকের পাতা সহ সকল ডকুমেন্ট চুরি করে এবং অন্যান্য কাগজপত্রাদি ও জিনিষপত্র তছনছ করে নির্বিঘ্নে সটকে পড়ে।

এঘটনার পর দীর্ঘদিন তিনি গা ঢাকা দিয়ে ছিলেন। বেশ কিছুদিন পরে তিনি বাড়িতে ফিরে আসলে আমি আবারো তার কাছে আমার পাওনা টাকা চাইলে হরিসুদন মুখার্জী ৫০ লক্ষ টাকার মধ্যে শুধু ছয়লক্ষ চুয়ান্নহাজার টাকা দেয়ার স্বীকার করেন। নুর আলম নান্টু তার বক্তব্য আরো বলেন,স্থানীয় কথিত এক ধান্ধাবাজ আমার পাওনা টাকা আত্নসাতের জন্য নানা রকম কলকাটি নাড়ছেন এবং তারই ইশারায় আমার বাড়িতে চুরি সংঘটিত হয়েছে বলে আমার সন্দেহ।

এমতবস্থায় হরিসুদন মুখার্জী স্বেচ্ছায় আমার সমুদয় টাকা পরিশোধ না করলে আমি আদালতের আশ্রয় নিতে বাধ্য হবো। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত নুর আলম নান্টুর ছেলে আরিফুল ইসলাম সীমান্ত বলেন,আমার বাবা একজন ব্যবসায়ী। তার কাছে হরিসুদন মুখার্জী বিভিন্ন সময়ে টাকা ধার নেয়। এই টাকা পরিশোধ না করে তিনি আমার বাবাকে এখন হয়রানী করছেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, স্থানীয় ব্যবসায়ী আব্দুর রাজ্জাক।

বন্ধুদের মাঝে শেয়ার করুন

এরকম আরও বার্তা
স্বত্ব © ২০১৫-২০২২ এশিয়ান বার্তা  

কারিগরি সহযোগিতায় Pigeon Soft