1. aknannu1964@gmail.com : AK Nannu : AK Nannu
  2. admin@asianbarta24.com : arifulweb :
  3. angelhome191@gmail.com : Mahbubul Mannan : Mahbubul Mannan
  4. info@asianbarta24.com : Dev Team : Dev Team
মঙ্গলবার, ১৬ অগাস্ট ২০২২, ০৪:০৯ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
জাতীয় শোক দিবসে বঙ্গবন্ধু গবেষণা পরিষদের বিভিন্ন কর্মসূচি পালন রাজধানীর চকবাজারে পলিথিন কারখানায় আগুন নিয়ন্ত্রণে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নাটোরের কলেজ শিক্ষিকার মৃত্যুর নেপথ্যে উদঘাটন যারা আন্দোলন করছে তাদের কাউকে যেন গ্রেফতার করা না হয়: প্রধানমন্ত্রী কলেজছাত্রকে বিয়ে করা নাটোরের সেই শিক্ষিকার মরদেহ উদ্ধার জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে ফ্রি মেডিক্যাল ক্যাম্প ও ঔষধ বিতরণ গোপালগঞ্জে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের ৭টি উন্নয়ন প্রকল্প পরিদর্শণ করেছেন এলজিইডি’র প্রধান প্রকৌশলী নওগাঁর মহাদেবপুরে প্রাইভেট কার খাদে পড়ে স্বামী ও অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী নিহত নলডাঙ্গায় মোটরসাইকেল ও সিএনজি মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ২

বগুড়ায় ৪ কোটি টাকার রাস্তার কাজ শেষ না হতেই কার্পেটিং উঠে বেহাল দশা

  • আপডেট করা হয়েছে : শনিবার, ২ জুলাই, ২০২২

 

 

বগুড়া প্রতিনিধিঃ
কয়েক লক্ষ মানুষের দীর্ঘ দিনের ভোগান্তির অবসান করতে গিয়ে শুভংকরের ফাঁকি দিয়েছে রাস্তা কাজের সাথে সংশ্লিষ্টরা। একেবারেই নি¤œমানের কাজের কারনেই কার্পেটিং শেষ করার পরদিন থেকেই প্রথমে বিভিন্নস্থানে ফাঁটল ও উঠে যেতে শুরু করে। ১৫ দিন পার না হতেই এক পর্যায়ে চলাচলের উপযোগীতা হাড়াতে বসে এর পর শুরু হয় নানা আলোচনা সমালোচনার। এঘটনায় ইঞ্জিনিয়ার ডিপার্টমেন্ট ও ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান সমালোচনার মুখে পরে, ঘটনা ধামা-চাপা দিতে রাস্তাটিতে জোরাতালির কাজ শুরু করে। বর্তমানে জোরাতালির কাজ চলমান রয়েছে।
সরেজমিনে এলাকাবাসীর সাথে কথা বলেলে তারা বলেন এই রাস্তার কাজ শুরুই হয়েছে অনিয়ম দিয়ে। বার-বার বললেও সেদিকে কর্ণপাত না করে তাদের নিজেদের মনগড়াভাবে কাজ করে গেছে। বরং ভালোভাকে কাজ করার ধরনা দিলেও শুনতে হয়েছে নানা ধরনের কটু কথা। এমনকি হুমকি-ধামকিও দেয়া হয়েছে আমাদের। নি¤œ মানের ইট, খোয়া, পাথর, বিটুমিনসহ সব ধরনের সামগ্রী দেয়া হয়েছে একেবারেই নি¤œমানের। কার্পেটিং করার পূর্বে রাস্তার আবর্জনা ও ধুলোবালি পরিস্কার করাতো দুরের কথা, কোনমতো কাজ শেষ করে ফিরে যেতে পারলেই যেন দায়মুক্তি পাবেন তারা।
বগুড়ার সাজাহানপুর উপজেলার মাদলা ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন থেকে শুরু করে পেরির হাট পর্যন্ত পৌনে ৫ কিলোমিটার রাস্তার কাজ করেন বগুড়ার ইসলাম এন্টারপ্রাইজ নামের একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। এই কাজের ব্যয় ধরা হয়েছে ৪ কোটি ৮ লক্ষ টাকা। অনেকেই বলছেন রাস্তা মেরামত বাবদ এত বড়ো একটি বাজেটের কাজে এতো অনিয়ম করা হয়েছে এটা আমাদের জীবনের প্রথম দেখা।
গাড়ী চালক ও যাত্রীদের সাথে কথা বললে তারা বলেন আমরা প্রতিনিয়ত এই রাস্তায় চলাচল করি বিভিন্ন সময় নানা ধরনের অনিয়ম দেখলেও না দেখার ভান করে থাকতে হয়েছে। কারন কার কাছে অভিযোগ করবো সেই মানুষ খুজে পাইনি। দু-একবার বললেও কটু কথা আর হুমকি-ধামকি ছাড়া আর কিছুই জোটেনি।
রাস্তার জোরাতালির কাজ চলছে এমন স্থানে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের সাইড ম্যানেজারের সাথে দেখা হয়। সে অকপটেই বলেন এই রাস্তার কার্পেটিংয়ের পর দিন থেকেই উঠে যেতে শুরু করেছে। কারন হিসেবে ইষ্টিমেটের কিছু গরমিলসহ নানা ধরনের কথার মধ্যে উল্লেখ্য করেন রাতের আধারে শতাধিক ১০ চাকার ড্রাম ট্রাক যোগে বালু ভর্তি ৩০ থেকে ৪০ টন ওজন নিয়ে চলাচল করে। যার কারনেই এমন অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।

বর্তমানের যাত্রী ও চালকরা পুনরায় পূর্বের ভোগান্তিতে পরে হতাশ হয়ে বলছেন। অনিয়ম করে এমন নি¤œমানের রাস্তা কাজের সাথে জরিতদের অতি দ্রুত আইনের আওয়াতায় নেয়া দরকার।
মাদলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আতিকুর রহামানের সাথে কথা বললে তিনি আক্ষেপ করে বলেন বহুবার ঢাকাসহ বিভিন্নস্থানে দৌড়া-দৌড়ি করে অনেক চেষ্টার পর রাস্তার কাজটি নিয়ে আসি কিন্তু আমাকে হেয় করার জন্যা নানা ধরনের কৌশল অবলম্বন করে একটি মহল। যার কারনে এই রাস্তার কাজের সাথে আমার কোন সংশ্লিষ্টতা নেই এমনকি আমি দেখতেই যাইনি যে কেমন কাজ হচ্ছে।

এরকম আরও বার্তা
স্বত্ব © ২০১৫-২০২২ এশিয়ান বার্তা  

কারিগরি সহযোগিতায় Pigeon Soft